বৃহঃ. অক্টো ২৯, ২০২০

দৈনিক আজকের বাংলাদেশ

সত্য প্রকাশে আপোষহীণ…

প্রধানমন্ত্রী প্রবাসীদের জন্য ৫০০ কোটি টাকা দেওয়ায় (বাপ্রকফা) পক্ষ থেকে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ

আজকের বাংলাদেশ ডেস্ক:-

প্রবাসীরা দেশের সবচেয়ে বড় সম্পদ। বিদেশের মাটিতে কষ্ট করে দেশের জন্য মুল্যবান রেমিটেন্স তারা এনে দেন। তবে তারা যখন দেশ ছেড়ে যায় অনেক প্রবাসীরাই নিজেদের জায়গা জমি অথবা বাড়ি বিক্রি করে বিদেশে পাড়ি জমায়।

সেই সব প্রবাসীদের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ৫০০ কোটি টাকার বিশেষ বরাদ্দ ঘোষণা করেছেন। ঘরবাড়ি বিক্রি করে যাতে কাউকে বিদেশে যেতে না হয় এবং কোনো কারণে বিদেশ থেকে ফিরলে প্রবাসীরা যেন ঋণ নিয়ে ব্যবসা-বাণিজ্য করতে পারেন, সেজন্য এ লোন বরাদ্দ
ঘোষণা করা হয়েছে।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর এমন তড়িৎ যুযোপযুগী প্রবাসীবান্ধন সিদ্ধান্ত নিয়ে প্রবাসীদের পাশে দাড়াঁনোর জন্য বাংলাদেশ প্রবাসী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের পক্ষে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানিয়েছে সংগঠনের আহবায়ক হাজী মুহসীন দেওয়ান।

গত ১৪ মে বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী তার সরকারি বাসভবন গণভবন থেকে কর্মহীন অসহায় মানুষের জন্য সরাসরি মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে নগদ অর্থ পাঠানো কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এ ঘোষনা দেন।

COVID 19 বা করোনার মহামারীতে সবচেয়ে বেশী ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে প্রবাসী আয়। পাশাপাশি অনেকে প্রবাসে বেকার হয়ে দেশে চলে যেতে বাধ্য হচ্ছে। আর এই সমস্ত ফেরত প্রবাসীরা যাতে দেশে গিয়ে বেকার না থাকে তার লক্ষে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিন প্রবাসী কল্যাণ ব্যাংকে ৫০০ কোটি টাকা বরাদ্দ দিয়েছেন।যা সহজ শর্তে কম সুদে প্রবাসীরা ৩-৭ লক্ষ টাকা পর্যন্ত লোন নিতে পারবেন। প্রবাসীদের এই বিপদে মাননীয় প্রধানমন্ত্রর এমন পদক্ষেপ যা অনেক প্রবাসীকে মানসিক দূঃশচিন্তা এবং বেকারত্বের অভিশাপ থেকে রক্ষা করবে।

হাজী মুহসিন দেওয়ান জানান, যে সমস্ত প্রবাসীরা করোনার কারনে ছুটিতে গিয়ে দেশে আটকা পরেছেন,এবং যারা প্রবাসে চাকুরী হারিয়ে দেশে যাবেন তার প্রবাসী কল্যান ব্যাংক থেকে এই লোন নিতে পারবেন। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর এই বিশেষ বরাদ্দে প্রবাসীদের আশার আলো জ্বালাবে এবং ঘুরে দাঁড়াতে সাহায্য করবে বলে আশাবাদ ব্যাক্ত করেছেন সংগঠনের বিভিন্ন দেশে অবস্থান’রত সদস্যবৃন্দ। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এই কল্যাণময় উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে বাংলাদেশ প্রবাসী কল্যাণ ফাউন্ডেশন (বাপ্রকফা) এর পক্ষ থেকে কৃতজ্ঞতা ও ধন্যবাদ জ্ঞাপন করছি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like us on Facebook