বৃহঃ. আগ ১৩, ২০২০

দৈনিক আজকের বাংলাদেশ

সত্য প্রকাশে আপোষহীণ…

বন্দর উপজেলা আ.লীগ সাধারণ সম্পাদক পদে গাজী এম এ সালাম জনপ্রিয়তার শীর্ষে

আজকের বাংলাদেশ রির্পোট, সুমন হাসান:-

জাতীয় সংসদ নির্বাচন থেকে শুরু করে উপজেলা নির্বাচনের রেশ কাটতে না কাটতেই শুরু হচ্ছে আওয়ামীলীগ দলীয় কমিটি গঠন। এ উপলক্ষে দেশের অন্যান্য জেলা উপজেলার কমিটি গঠনের পাশাপাশি নারায়ণগঞ্জ বন্দর উপজেলায় চলছে কমিটি গঠনের প্রস্তূতি। এরই মাঝে রুপগঞ্জ ও আড়াইহাজার উপজেলায় কমিটি গঠন হয়ে গেছে। এবারে বন্দর উপজেলায় আওয়ামীলীগ দলীয় সাধারন সম্পাদক পদে চারজন প্রার্থীর নাম শোনা যাচ্ছে। চারজনই বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ দলীয় কর্মী হলে ও মদনপুর ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব গাজী এম এ সালাম বন্দর থানা ছাত্রলীগের জনপ্রিয় সহ- সভাপতি। বাকি তিনজন নামে মাত্র আওয়ামীলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত থাকলে ও তেমন কোন বড় পদে নেই। তারা নাম মাত্র আওয়ামীলীগের সমর্থনকারী কর্মী। চারজন প্রার্থীর মধ্যে আলহাজ্ব ইব্রাহীম কাসেমী কলাগাছিয়া ইউনিয়ন আ.লীগ সাধারন সম্পাদক পদে দায়িত্ব পালন করে আসছে। বাকী দুইজন প্রার্থী আলহাজ্ব মাসুম আহম্মেদ চেয়ারম্যান ও আব্দুল আজিজ দেওয়ান। গত পাঁচ বছর পূর্বে আজিজ দেওয়ান মদনপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে প্রার্থী হবেন বলে মাঠে থাকলে ও শেষ পর্যন্ত নির্বাচনী মাঠ থেকে সরে পড়েন। ফলে দীর্ঘ পাঁচ বছর তাকে আর মাঠে পাওয়া যায়নি। মাসুম চেয়ারম্যানের অবস্থা ও আব্দুল আজিজ দেওয়ানের মত। তাকে ও আওয়ামীলীগ দলীয় বড় কোন সভা সমাবেশ ব্যতীত অন্য কোন অনুষ্ঠানে তেমন একটা চোখে পড়েনা। তাছাড়া দলীয় নেতা কর্মীদের সাথে তেমন কোন যোগাযোগ নেই। তবে আলহাজ্ব ইব্রাহীম কাসেমী নেতাকর্মী নিয়ে একের পর এক সভা সমাবেশ করে যাচ্ছেন। তাছাড়া বর্তমান উপজেলা চেয়ারম্যান ও সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব এম এ রশিদ এর সাথে রয়েছে এম এ সালাম চেয়ারম্যানের সু-সম্পর্ক। গাজী এম এ সালাম চেয়াম্যানের উপর দলীয় হাই কমান্ডের বিশেষ নজড় রয়েছে। নারায়ণগঞ্জের আওয়ামীলীগের কান্ডারী সিংহ পুরুষ আলহাজ্ব এ কে এম শামিম ওসমান এম পি মহোদয়ের সাথে রয়েছে তার নিবিড় সম্পর্ক। আন্তরিকতার বিশেষ সখ্যতা রয়েছে সদর- বন্দরের সাংসদ বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব এ কে এম সেলিম ওসমানের সাথে। তাছাড়া রাজনীতির দিক থেকে সালাম একজন পাক্কা খেলোয়ার। সেই ছাত্র জীবন থেকে তার ছাত্রলীগ রাজনীতির সাথে অবস্থান। দলের দু:সময়ে দলীয় নেতা কর্মীদের সাথে নিয়ে রাজনীতির মাঠে সরব আছেন গাজী এম এ সালাম । জনগনের ভালোবাসায় পরপর দুইবার মদনপুর ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচিত চেয়ারম্যান। বন্দর উপজেলা আওয়ামীলীগ দলীয় নেতাকর্মীদের সাথে রয়েছে সুসম্পর্ক। সুশিক্ষিত মেধাবী একজন তরুন রাজনীতিবিদ। বন্দর উপজেলা তৃনমূল আওয়ামীলীগ নেতাদের ও পূর্ন সমর্থন রয়েছে সালাম চেয়ারম্যানের উপর। তাইতো সব দিক থেকে মিলিয়ে বন্দর উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারন সম্পাদক পদে আলহাজ্ব গাজী এম এ সালাম চেয়ারম্যান এগিয়ে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like us on Facebook