মঙ্গল. সেপ্টে ২২, ২০২০

দৈনিক আজকের বাংলাদেশ

সত্য প্রকাশে আপোষহীণ…

বন্দরে খামার মালিককে কুপিয়ে জখমের ঘটনায় ৬ দিনেও মামলা নেয়নি পুলিশ

আজকের বাংলাদেশ রির্পোট:-

ফুল বাগানে অগ্নিসংযোগ ও মৎস খামার থেকে মাছ চুরি ঘটনায় প্রতিবাদ করার জের ধরে মৎস খামার মালিককে কুপিয়ে ডান হাত গুরুত্ব জখম করেছে স্থানীয় সন্ত্রাসী ফয়সাল ও নয়নসহ তাদেও সাঙ্গপাঙ্গরা।

গত ৪ অক্টবর দুপুরে বন্দর কলাববাগস্থ হবু হাজী বাড়ীর সামনে এ ঘটনাটি ঘটে। এ ব্যাপারে আহত মৎস খামার মালিক রানা মিয়া বাদী হয়ে ঘটনার ওই দিন রাতে বন্দর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করে। হামলার ঘটনার ৬ দিন পেরিয়ে গেলেও রহস্য জনক কারনে এখন পর্যন্ত মামলা নেয়নি পুলিশ।

বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে, পুরান বন্দর কলাবাগ এলাকার মৃত আদম আলী প্রধানের ছেলে রানা মিয়া একই এলাকায় ফুল বাগান ও মৎস খামার রয়েছে। পূর্ব শত্রুতার জের ধরে সম্প্রতি সময়ে বন্দর কলাবাগ এলাকার রহম আলী মিয়ার সন্ত্রাসী ছেলে ফয়সাল (২৬) ও হাফেজীবাগ এলাকার টুন্ডা মনির মিয়ার ছেলে নয়নসহ কয়েক জন সন্ত্রাসী রানা ফুল বাগানে অগ্নিসংযোগসহ রাতের আধারে মৎস খামার থেকে বিভিন্ন প্রজাতির মাছ চুরি করে নিয়ে যায়। এ ঘটনায় মৎস খামার মালিক রানার প্রায় ২ লাখ ৫০ হাজার টাকা ক্ষতি সাধন হয়।

এ ব্যাপারে খামার মালিক রানা মিয়া গত ৪ অক্টবর দুপুরে এর প্রতিবাদ করলে উল্লেখিত ২ সন্ত্রাসীসহ অজ্ঞাত নামা ২/৩ জন ক্ষিপ্ত হয়ে রানাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে হত্যার উদ্দেশ্যে কুপিয়ে জখম করে। এ ব্যাপারে রানা মিয়া খানপুর হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা গ্রহন করে বন্দর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করলে এ রির্পোট লেখা পর্যন্ত এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত মামলায় নেয়নি পুলিশ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Like us on Facebook